• রবিবার, ০১ নভেম্বর ২০২০, ০১:২৮ পূর্বাহ্ন |
শিরোনাম :

ভর্তি পরীক্ষা নেবে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়

সিসি ডেস্ক, ১৭ অক্টোবর ।। করোনা মহামারির মধ্যেই পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে অনলাইনের মাধ্যমে ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন উপাচার্যরা। বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে উপাচার্যরা বসে পরে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন।

শনিবার সন্ধ্যায় উপাচার্যদের সংগঠন ‘বিশ্ববিদ্যালয় পরিষদ’ এ সংক্রান্ত জরুরি সভা শেষে এই সিদ্ধান্তের কথা জানায়।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন অর রশিদ গণমাধ্যমকে বলেন, দীর্ঘ সভা শেষে আমাদের নীতিগত সিদ্ধান্ত হয়েছে অনলাইনে ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সভায় বঙ্গবন্ধু ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুনাজ নূরের উদ্ভাবিত সফটওয়্যার ব্যবহার করে পরীক্ষাটি নেয়া হবে। এর মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের শুধু স্মার্টফোন বা ল্যাপটপ থাকলেই বাসায় বসে পরীক্ষা দিতে পারবে। আর আমরাও স্ব স্ব অবস্থানে থেকে পর্যবেক্ষণ করতে পারবো।

এই সফটওয়্যারের মাধ্যমে স্বচ্ছ ও ও নির্ভরযোগ্য উপায়ে পরীক্ষা নেয়া দাবি করে তিনি বলেন, কারো অসদুপায় অবলম্বনের সুযোগ নেই। তবে কেউ যদি অসদুপায় অবলম্বন করেও সেটা স্পষ্ট ধরা পড়বে এবং সাথে সাথেই তার পরীক্ষা বাতিল হয়ে যাবে।’

এই সফটওয়ারটির ব্যপারে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে উপাচার্যরা আবারো বসবেন বলেও জানান তিনি।

তিনি বলেন, ‘ইউজিসি এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত দিলে প্রত্যেক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং আইটির সঙ্গে যারা যুক্ত তাদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে। ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়ই এই ব্যবস্থা করে দেবে। প্রশিক্ষণ শেষে ছোট ছোট পরীক্ষা নেয়া হবে তারপর অন্যান্য পরীক্ষা গুলো নিয়ে কাজ করা হবে। ফলে এই ভর্তি পরীক্ষার ব্যাপারেও নীতিগত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে যে অনলাইনের মাধ্যমে ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে। পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সমন্বিত পদ্ধতিতে পরীক্ষা নিয়ে এরপর ভর্তি কার্যক্রম শুরু করা হবে।’

সংগঠনের সভাপতি অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ রফিকুল আলমের সভাপতিত্বে ভার্চুয়াল ওই সভায় বিভিন্ন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসিরা অংশগ্রহণ করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ