• শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ন |

নীলফামারীতে জাপার আহবায়ক কমিটি নিয়ে আন্দোলনের হুমকি

সিসি নিউজ ।। নীলফামারী জেলা জাপার নতুন আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিবকে দ্রুত প্রত্যাহার করা না হলে আন্দোলনের হুমকী দিয়েছেন বিলুপ্ত জেলা আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব শাহজাহান আলী চেীধুরী ।
বুধবার দুপুরে জেলা শহরের সড়ক পরিবহণ মালিক গ্রুপ কার্যালয়ে জেলা জাপা ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের ব্যানারে এক সংবাদ সম্মেলন ওই হুমকি প্রদান করা হয়।
এ সময় সদর উপজেলা জাপার আহবায়ক আতাউর রহমান বাবু, সদস্য সচিব হারুন উর রশিদ, জেলা শ্রমিক পার্টির সভাপতি বজলার রহমান, জেলা যুব সংহতির সভাপতি মামুনুর রশিদ সামুন ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান, জেলা ছাত্র সমাজের আহবায়ক মাহমুদ হাসান অয়ন উপস্থিত ছিলেন।
সদর উপজেলা আহবায়ক আতাউর রহমান বাবু বলেন, সাংগঠনিকভাবে দলের গতিশীলতা বাড়াতে কাজ করছি আমরা। ঢাকায় বসে কমিটি দেয়া হচ্ছে তাহলে জেলা উপজেলা সম্মেলন কেন? যে কমিটি করা হয়েছে তা অগণতান্ত্রিক ও অরাজনৈতিক। আমরা তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং দ্রুত পরিবর্তণের দাবী করছি।
শাহজাহান আলী চৌধুরী বলেন, নীলফামারী-৪ আসনের সংসদ সদস্য আহসান আদেলুর রহমান ও আমাকে সদস্য সচিব করে দেড় বছর আগে জেলা জাপার আহবায়ক কমিটি করা হয়। এরই মধ্যে আমরা সবকটি উপজেলা কমিটিও করেছি। জেলা সম্মেলন করার জন্য আহবায়ককে বারবার তাগিদ দেয়া হলেও তিনি কর্ণপাত করেননি বরং জেলা সম্মেলন জেলা শহরের বাহিরে সৈয়দপুর উপজেলা শহরে করার ইচ্ছে প্রকাশ করেন। এর বিরুদ্ধে আমি অবস্থান নেই। এ কারণে ষড়যন্ত্র করে আমাকে বাদ দিয়ে নতুন করে আহবায়ক কমিটি করা হয়। তিনি প্রশ্ন করেন যদি আমি ব্যর্থ হই তাহলে সাংগঠনিক ভাবে জেলা আহবায়কও ব্যর্থ। তিনি তো বাদ গেলেন না?
তিনি অভিযোগ করে বলেন, জাতীয় পার্টিকে শুণ্যের কোটায় নিয়ে গেছেন নতুন আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব সাজ্জাদ পারভেজ। তার কোন সাংগঠনিক ভাবে ভিত্তি নেই। সৈয়দপুর পৌরসভা নির্বাচনে লাঙলের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছিলেন তিনি। আমি চাই তৃণমুলে নেতাকর্মীদের মতামতের ভিত্তিতে কমিটিতে দায়িত্ব দেয়া হোক এতে যে আসবে তাকে মেনে নিতে আপত্তি নেই আমার।
সংবাদ সম্মেলনে আগামী ১৭ জুলাই এর মধ্যে সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করা না হলে আন্দোলন কর্মসুচী ঘোষনা করা হবে বলে জানান আয়োজকরা।
প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মোহাম্মদ এরশাদ ও জাপার বর্তমান প্রেসিডেন্ট গোলাম মোহাম্মদ কাদের এর ভাগ্নে নীলফামারী জেলা জাপার আহবায়ক ও সংসদ সদস্য আহসান আদেলুর রহমান জানান, সফলতা বা বর্থ্যতার জন্য নয়। আমাদের কমিটি মেয়াদ উর্ত্তীণ হয়েছে, সে কারণে চেয়ারম্যান আবার নতুন করে আহবায়ক কমিটি দিয়েছেন।
প্রসঙ্গত সম্প্রতি সাংসদ আহসান আদেলুর রহমানকে আদেলকে আহবায়ক, সাংসদ মেজর (অব.) রানা মোহাম্মদ সোহেলকে যুগ্ম আহবায়ক এবং সাবেক জেলা জাপার সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ পারভেজকে সদস্য সচিব করে নতুন করে জেলা জাপার আহবায়ক কমিটি গঠন করা হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ