• মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২২, ০৮:৩৭ অপরাহ্ন |

ফলোআপ: নিখোঁজ গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় মামলা দায়ের

সিসি নিউজ ।। নীলফামারীর সৈয়দপুরে স্বামীর বাড়ি থেকে নিখোঁজের চার দিন পর গৃহবধূ লাভলী বেগমের (২৫) মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। নিহত গৃহবধূর মামা মাহ্মুুদুল হাসান ওরফে বাবু বাদী হয়ে শুক্রবার রাতে লাভলীকে হত্যার অভিযোগে সৈয়দপুর থানায় মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার আসামীরা হচ্ছে, নিহত গৃহবধূ লাভলীর স্বামী রেজাউল মন্ডল, শ্বাশুড়ী এছরা বেগম, শ্বশুর আফজাল আলী, জা সুমি বেগম, ভাশুর ইফসুফ আলী এবং প্রতিবেশি রবিউল ইসলাম ও সোহেল রানা । এছাড়াও মামলায় অজ্ঞাতনামা ২/৩জন ব্যক্তিকেও আসামী করা হয়। মামলায় এজাহার নামীয় সাত আসামীর মধ্যে নিহত গৃহবধূর স্বামী রেজাউল মন্ডল ও শ্বাশুড়ী এছরা বেগমকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত উল্লিখিত দুই আসামীকে শনিবার (২৮ নভেম্বর) সকালে আদালতের মাধ্যমে নীলফামারী কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের লক্ষণপুর পশ্চিমপাড়ার (নদীরপাড়া) রেজাউল ইসলামের স্ত্রী দুই সন্তানের জননী লাভলী বেগম মরদেহ গত শুক্রবার সকালে বাড়ির পিছনের একটি বাঁশঝাড়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ। গত ২৩ নভেম্বর থেকে গৃহবধূ লাভলী বেগম স্বামীর বাড়ি থেকে নিখোঁজ হন। তার নিখোঁজের বিষয়ে গত ২৫ নভেম্বর সৈয়দপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করা হয়। এছাড়াও তার সন্ধানে গোটা এলাকাজুড়ে মাইকিং করা হয়েছিল।

সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল হাসনাত খান নিখোঁজ গৃহবধূ লাভলী নিখোঁজের চার দিন পর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় মামলার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, ঘটনার বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক নিহত গৃহবধূ স্বামী ও শ্বাশুড়ীকে এ মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। এ মামলার অন্যান্য আসামীদের গ্রেপ্তারেও পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ